অমর একুশে বইমেলার এবারের চমক “স্বপ্নের আত্নহত্যা”

লিখেছেন উদীয়মান তরুণ লেখক রাশেদুল হায়দার

স্বপ্নের আত্নহত্যা
Share with social media…
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

রাজধানীর বাংলা একাডেমীতে চলছে অমর একুশে বইমেলার উৎসব । পুরো ফেব্রূয়ারী মাস জুড়ে চলবে এই বইমেলা । বরাবরের মত এবারো নানা প্রকাশনীর নতুন নতুন বইয়ের আবির্ভাব ঘটেছে । পাশাপাশি আবির্ভাব ঘটেছে তরুণ ও উদীয়মান নতুন কিছু লেখক । তেমনি একজন লেখক রাশেদুল হায়দার  । স্বপ্নের আত্নহত্যা নামে তিনি একটি বই এবারের বই মেলায় উপহার দিয়েছেন । চলুন বইটি সম্পর্কে এবং লেখক সম্পর্কে জেনে নেয়া যাক ।

স্বপ্নের আত্নহত্যা

সারমর্ম (বইয়ের হার্ড কভার পেইজের জন্য)

বড় হওয়ার স্বপ্নই আমার হতাশার কারণ

স্বপ্নকে লালন করতে গিয়ে একবুক আশা নিয়ে থাকি

কিন্তু স্বপ্ন যখন শুধু স্বপ্নই রইয়ে যায় তখন হতাশার সৃষ্টি হয়।

হয়তবা এই স্বপ্ন দেখাই শেষ নয়

এই স্বপ্ন দেখতে দেখতেই একদিন জীবনের শেষ

স্বপ্ন দেখার সময় দোয়ারে কড়া নাড়বে।

সেইদিনের শেষ স্বপ্ন হবে, কত সহজে এই

স্বপ্নময় পৃথিবী ছেড়ে পরকালের আসল স্বপ্নের জীবনে যাওয়া যায়।

বর্তমানের স্বপ্ন সত্য মিথ্যা যাই হোক সেই দিনের স্বপ্ন নিশ্চয় সত্য হবে।

 

লেখকের কথা

ছোট বেলা থেকেই আমি খুব ভাবুক আর আনমনে প্রকৃতি ছিলাম। ভাবনা চিন্তাগুলো অন্যদের থেকে একটু ভিন্ন ভাবে প্রকাশ করাটা আমার অভ্যাস ছিলো। তাই যে কোন ছোট খাটো ভাবনাই কখনো কখনো আমার দু-চিন্তার কারণ হত। দু-চিন্তার সর্বগ্রাসে আমার নিত্যদিনে সুখ নিদ্রা কেরে নিচ্ছিল। হঠাৎ মনে হলো। সবকিছু ডায়েরিতে লেখে ফেললে কেমন হয়। সেদিন থেকে ঘুমানোর সময় মাথার কাছে একটা ডায়েরি রাখতাম। একদিন ফেসবুকে স্ট্যাটাস দিলাম, “আমি অধম একজন ব্যর্থ কম্পিউটার ইঞ্জিনিয়ার যার প্রোগ্রাম লেখার এডিটর থেকেও কবিতা লেখার ডায়রি ভালো লাগে’!

সেই ভালো লাগা ডায়েরির ছেঁড়া পাতা থেকে স্বপ্নের আত্মহত্যা বইয়ের উপাখ্যান। প্রতিদিনের নতুন নতুন স্বপ্নগুলো কঠিন বাস্তবতায় পৃষ্ট হয়ে মারা যায়। এই বইয়ে সেইসব স্বপ্নের কথার মালা গাঁথার চেষ্টা করেছি মাত্র।

পাঠকদের যদি এর একটি কবিতাও পছন্দ হয় বা ভালো লাগে তাহলে আমার এই নির্ঘুম রাতের বই ‘স্বপ্নের আত্মহত্যা’ সার্থক হবে। এটা আমার প্রথম কবিতার বই। ভবিষ্যৎ আরও বই লেখার স্বপ্নও লালন করি। পাঠকদের ভালোবাসা আর দোয়া থাকলে সেটাও সম্ভব হবে।

আপনাদের ভুল শুধরে দেয়া আর ধৈর্যশীল হয়ে নতুন লেখকের বই পড়াতেই পরবর্তী বই লেখার উৎসাহ হিসেবে কাজ করবে।

শুভকামনা থাকলো সকল পাঠকদের প্রতি। ধন্যবাদ সকলকে।

 

লেখক রাশেদুল হায়দার সম্পর্কে কিছু তথ্য জেনে নেয়া যাক –

রাশেদুল হায়দার এর স্বপ্নের আত্নহত্যা
রাশেদুল হায়দার, পিতা: আব্দুল হান্নান, মাতা: নাছিমা বেগম। সাগর আর নারকেল গাছে ঘেরা বঙ্গোপসাগরের মোহনা বাংলাদেশের প্রত্যন্ত অঞ্চল সন্দ্বীপে জন্ম গ্রহণ করেছেন। বেড়ে উঠেছেন চট্টগ্রামের হালিশহরে। ঢাকা প্রকৌশল ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয় (ডুয়েট), গাজীপুর থেকে কম্পিউটার সায়েন্স এন্ড ইঞ্জিনিয়ারিং (সিএসই) বিভাগে পড়াশুনা শেষ করে তিন বছরেরও বেশি বাংলাদেশের সুনাম ধন্য পত্রিকা ‘প্রথম আলো’র আইটি বিভাগে কাজ করেছেন। বর্তমানে ‘জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়’ গাজীপুরে কর্মরত আছেন। জীবন সঙ্গিনী হিসেবে বিবাহ বন্ধনে আবদ্ধ হন ‘মাহমুদা আক্তার রিমা’র সাথে।

ছাত্র জীবন থেকেই তিনি কবিতা অনুরাগী আর সাহিত্য প্রেমী ছিলেন। ইঞ্জিনিয়ারিং পড়াশুনার পাশা পাশী সাহিত্য চর্চা করতেন। বিশ্ববিদ্যালয় জীবনে ভালো বিতার্কিক ছিলেন। ডিবেট আর মঞ্চ অভিনয়ের সক্রিয় সদস্য ছিলেন। পত্র পত্রিকায় লেখা লেখি ছিলো তাঁর বেশ শখের। বেশ কিছু জাতীয় দৈনিক পত্রিকা তাঁর লেখা ছোট গল্প, ভ্রমণ কাহিনী আর রম্য রচনা প্রকাশ করেছেন। বাংলাদেশের জনপ্রিয় বেশির ভাগ পর্যটন জায়গায় তিনি একাধিক বার ভ্রমণ করেছেন। বন্ধু আর পরিচিত মহলে ‘ভ্রমণ পোকা’ হিসেবে বেশ পরিচিত তিনি।

বই হিসেবে ‘স্বপ্নের আত্মহত্যা’ কবিতার বইটিই প্রথম।

ইমেইল: mrhaider46@gmail.com
Website: www.iamhaider.com

 

 

Leave a comment

Your email address will not be published.


*