ঢাকা প্রিমিয়ার লিগে উজ্জ্বল মাশরাফি ও শান্ত

Share with social media…
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  



চলমান ঢাকা প্রিমিয়ার লিগে উজ্জ্বল মাশরাফি ও শান্ত এর পারফরম্যান্স। এক বছরের বিরতিতে আবাহনীর হাতে উঠেছে ঢাকা প্রিমিয়ার লিগের (ডিপিএল) শিরোপা। আসরের সর্বোচ্চ রানস্কোরার ও উইকেট প্রাপ্তির শীর্ষস্থানও আবাহনীর দখলে। যার নেতৃত্ব যথাক্রমে উদীয়মান বাঁহাতি ওপেনার নাজমুল হোসেন শান্ত ও মাশরাফি বিন মর্তুজার হাতে।

মৌসুমের শেষ দিনে চ্যাম্পিয়ন হওয়ার ম্যাচে লিজেন্ডস অব রূপগঞ্জকে ৯৪ রানে হারিয়ে শিরোপা উল্লাসে মাতে তারকাসমৃদ্ধ আবাহনী। অধিনায়ক নাসির হোসেন ও শান্তর জোড়া সেঞ্চুরিতে ৩৭৪ রানের জবাবে ২৮০-তে থামেন মুশফিক-নাঈমরা। ওপেনিং সঙ্গী এনমুল হক বিজয়কে পেছনে ফেলে সবচেয়ে বেশি রান করে ঘরোয়া ওয়ানডে লিগ সিজন শেষ করেন শান্ত। ১৬ ম্যাচে তার নামের পাশে ৭৪৯ রান। দু’টি ফিফটির পাশাপাশি সেঞ্চুরি হাঁকিয়েছেন চারবার। সর্বোচ্চ ইনিংস ১৫০ অপরাজিত। মাত্র ৫ রান দূরে বিজয় (৭৪৪)। ৭২০ রান নিয়ে তৃতীয় স্থানে রূপগঞ্জ দলপতি নাঈম ইসলাম। প্রাইম দোলেশ্বরের ফজলে মাহমুদ করেছেন ৭০৮। ঢাকা প্রিমিয়ার লিগে থেকে অবনমনে প্রথম বিভাগ প্রতিযোগিতায় নেমে যাওয়া কলাবাগান ক্রীড়া চক্রের হয়ে উজ্জ্বল ছিলেন মোহাম্মদ আশরাফুল। সর্বাধিক পাঁচটি সেঞ্চুরির রেকর্ড গড়েছেন এই অভিজ্ঞ ব্যাটসম্যান। ১৩ ম্যাচে করেছেন ৬৬৫।

বোলিংয়ের সেরা পাঁচে ৩৪ বছর বয়সী মাশরাফির ধারেকাছেও কেউ নেই। শেষ ম্যাচে ১ উইকেট নিয়ে সংখ্যাটা ৩৯-এ নিয়ে গেছেন বাংলাদেশ দলের ওয়ানডে অধিনায়ক। এক সিজনে সর্বোচ্চ উইকেটের রেকর্ডও গড়েন ‘নড়াইল এক্সপ্রেস’। ছাড়িয়ে যান আবু হায়দার রনির করা গতবারের ঢাকা প্রিমিয়ার লিগ এ ৩৫ উইকেটের কীর্তি। মাশরাফির নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বীদের মধ্যে প্রতিদ্বন্দ্বিতা দেখার মতো। সমান ১৬ ম্যাচে ২৯টি করে উইকেট নিয়েছেন রূপগঞ্জের বাঁহাতি স্পিনার আসিফ হাসান ও পেসার মোহাম্মদ শহীদ এবং দোলেশ্বরের ফরহাদ রেজা। ১১ ম্যাচে ২৮টি উইকেট নিয়ে পাঁচ নম্বরে মোহামেডানের উঠতি বাঁহাতি ফাস্ট বোলার কাজী অনিক।



Leave a comment

Your email address will not be published.


*